ইতালিকে হারিয়ে ফাইনালিসিমা শিরোপা জিতলো আর্জেন্টিনা

ইতালিকে হারিয়ে ফাইনালিসিমা শিরোপা জিতলো আর্জেন্টিনা

​​​​​স্পোর্টস​​​​ ডেস্কঃ



ইউরোপ চ্যাম্পিয়ন ইতালিকে হারিয়ে ফাইনালিসিমা জিতে নিল আর্জেন্টিনা। আর আলবেসিলেস্তাদের হয়ে দ্বিতীয় আন্তর্জাতিক শিরোপার স্বাদ পেলেন বিশ্বসেরা ফুটবলার লিওনেল মেসি।

লন্ডনের ওয়েম্বলি স্টেডিয়ামে বুধবার রাতে উয়েফা ইউরো কাপ জয়ী ইতালিকে ৩-০ ব্যবধানে হারায় কোপা আমেরিকা জয়ী লিওনেল স্কালোনির শিষ্যরা। এই নিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো এই শিরোপার স্বাদ পেল তারা।

এর আগে ১৯৯৩ সালে ডেনমার্ককে পরাজিত করে প্রথমবারের মতো এই ট্রফি জিতে আর্জেন্টিনা।
প্রথমার্ধেই লাউতারো মার্তিনেস ও আনহেল দি মারিয়ার গোলে ম্যাচ নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসে আর্জেন্টিনা।

দ্বিতীয়ার্ধেও আধিপত্য বজায় রাখা আলবেলিস্তাদের হয়ে শেষ পেরেকটি ঠুকে দেন লো সেলসোর বদলি হয়ে নামা পাওলো দিবালা।
ম্যাচের শুরু থেকেই এই মাঠে ইউরোপ চ্যাম্পিয়ন হওয়া ইতালিকে দারুণ সব আক্রমণ করে চাপে রাখে আর্জেন্টিনা।

ক্লাবের হয়ে বিবর্ণ থাকা মেসি জাতীয় দলের হয়ে আলো ছড়িয়েছেন। তার পায়ের যাদুতে ২৮তম মিনিটেই এগিয়ে যায় আলবেসিলেস্তারা। তবে গোল নয় দারুণ এক অ্যাসিস্ট করে লাওতারো মার্তিনেসকে দিয়ে মূল কাজ সম্পন্ন করে পিএসজির এই ফরোয়ার্ড।
প্রথমার্ধের যোগ করা সময়ে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন আনহেল দি মারিয়া। মার্তিনেসের থ্রু পাস থেকে বক্সে ঢুকে চিপ শটে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন পিএসজিকে বিদায় বলা এই মিডফিল্ডার। চালকের আসনে থেকে বিরতিতে যায় আর্জেন্টিনা।

বিরতির পর খেলতে নেমে আগের মতো দারুণ সব আক্রমণে ম্যাচে রোমাঞ্চ তৈরি করে আর্জেন্টিনা। একের পর এক আক্রমণ করতে থাকলেও ইতালির ডিফেন্ডার ও গোলরক্ষকের প্রচেষ্টায় সেগুলে ব্যর্থ হয়। তবে শেষদিকে এসে আর রক্ষা করতে পারেননি দোন্নারুম্মা। যোগ করা সময়ের চতুর্থ মিনিটে ডি-বক্সে বল পেয়ে কোনাকুনি শটে জাল খুঁজে নেন বদলি হয়ে নামা দিবালা।