তাড়াশে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে অনশন পাঁচ সন্তানের মায়ের!

তাড়াশে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে অনশন পাঁচ সন্তানের মায়ের!

তাড়াশ ডেস্কঃ



পাঁচ সন্তান ও স্বামীর মায়া ত্যাগ করে সিরাজগঞ্জের তাড়াশে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে অনশন করছেন মাসুদা বেগম (৪০) নামের এক প্রেমিকা।

সোমবার (২২ আগষ্ট) সন্ধ্যায় উপজেলার তালম ইউনিয়নের চাঁদপুর গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে মো. মোস্তাক হোসেনের (২৮) বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানান, গোন্তা গ্রামের আনোয়ারুল ইসলামের স্ত্রী ও পাঁচ সন্তানের মা মাসুদা বেগমের সাথে চাঁদপুর গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে মো. মোস্তাক হোসেনর প্রায় পাঁচ বছর ধরে প্রেমের সম্পর্ক চলছিল।

প্রেমিকা মাসুদা বেগম বলেন, এ প্রেমের সম্পর্ক ধরে বিয়ের প্রলোভনে প্রেমিক মোস্তাক দীর্ঘদিন যাবত তাঁকে স্ত্রীর মতো ব্যবহার করে আসছেন। এমনকি গত রোববার রাতেও আমাকে বিয়ে করবে বলে সে আমার এক আত্মীয় বাড়িতে আমার সাথে রাত্রীযাপনও করেন। পরে আমি তাঁকে সোমবার বিয়ের জন্য চাপ দিলে সে আমাকে বিয়ে করবে না জানান এবং এক পর্যায়ে কৌশলে আমাকে রেখে পালিয়ে যান। আর প্রেমিক মোস্তাক এখন বিয়ে না করলে তাঁর বাড়িতেই আত্মহত্যা করে প্রেমের ইতি টানবো। কেননা আমার স্বামী ও সন্তানেরা মোস্তাকের সাথে আমার প্রেমের সম্পর্ক জানতে পেরে আমাকে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছেন। তাই আমার আর কোন পথ খোলা নেই। এ জন্য হয় বিয়ে না হয় প্রেমিকের বাড়িতে আত্মহত্যা করে জীবন দেব।

তবে এ বিষয়ে মোস্তাক হোসেনর বক্তব্য নেওয়ার জন্য তাঁর মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তা বন্ধ পাওয়া যায়।
অবশ্য এ প্রসঙ্গে তালম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. আব্দুল খালেক বিষয়টির সত্যতা স্বীকার করে জানান, বিষয়টি নিয়ে মঙ্গলবার রাতে সালিশী বৈঠক হবে। আশা করছি সেখানে এলাকার গন্যমান্য লোকদের নিয়ে একটি সমাধানও করতে পারবো।